অবশেষে ভোটাধিকার পাচ্ছেন প্রবাসীরা অনলাইন নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

অবশেষে ভোটাধিকার পাচ্ছেন প্রবাসীরা অনলাইন নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু

প্রকাশিত: ১১:২১ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৫, ২০১৯

অবশেষে ভোটাধিকার পাচ্ছেন প্রবাসীরা অনলাইন নিবন্ধন কার্যক্রম শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক
অবশেষে ভোটাধিকার পাচ্ছেন প্রবাসীরা। চলমান ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রমে বিদেশে অবস্থানরত বাংলাদেশী নাগরিকদের নিবন্ধন শুরু হয়েছে। অবসান হচ্ছে প্রবাসীদের দীর্ঘদিনের অপেক্ষার প্রহর। এখন থেকে ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারবেন তারা। পাশাপাশি তাদেরকে দেয়া হবে জাতীয় পরিচয়পত্র।
প্রবাসী বাংলাদেশীদের অনলাইনে ভোটার হওয়ার সুযোগ উম্মোচন হচ্ছে মঙ্গলবার। এ প্রক্রিয়ায় প্রথমে সুযোগ পাচ্ছেন মালয়শিয়ায় থাকা বাংলাদেশীরা। প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নূরুল হুদা মঙ্গলবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ‘প্রবাসী ভোটার নিবন্ধন কার্যক্রম’ উদ্বোধন করেন। মালয়েশিয়া থেকে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ ও হাই কমিশনার অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন।
অনুষ্ঠানে প্রবাসী ভোটার নিবন্ধন প্রক্রিয়া নিয়ে বিস্তারিত তুলে ধরবেন জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ সাইদুল ইসলাম। ইসি কর্মকর্তারা জানান, প্রবাসী বাংলাদেশীরা ওয়েবসাইটে গিয়ে ভোটার হিসেবে নিবন্ধনের আবেদন করতে পারবেন। কেন্দ্রীয়ভাবে যাচাই-বাছাই শেষে সংশ্লিষ্ট দেশেই যোগ্য ও সঠিক আবেদনকারীর ছবি তোলা এবং ফিঙ্গারপ্রিন্ট ও চোখের আইরিশের প্রতিচ্ছবি নেওয়া হবে। মালয়েশিয়ার পর যুক্তরাজ্য, দুবাই ও সৌদি আরবে প্রবাসী বাংলাদেশিদের জন্য অনলাইনে এই সেবা চালুর উদ্যোগ রয়েছে ইসির। পর্যায়ক্রম অন্যান্য দেশেও এ সেবা চালু হবে। এ লক্ষ্যে ইতোমধ্যে ভোটার তালিকা বিধিমালায় প্রয়োজনীয় সংশোধনী আনা হয়েছে।
মহান মুক্তিযুদ্ধ থেকে শুরু করে দেশের যেকোনো দুর্যোগময় মুহূর্তে প্রবাসীরা দেশ-মাতৃকার টানে বাড়িয়েছেন সহযোগিতার হাত। তাদের ঘামে অর্জিত রেমিটেন্স দিয়ে এদেশের অর্থনীতির ভীত শক্ত হয়েছে। বিভিন্ন সরকারের সময় তারপরও তারা থেকেছেন উপেক্ষিত। প্রতিটি সরকারই তাদের আশাহত করেছে। দীর্ঘদিন থেকে তারা স্বপ্ন বুঁনছিলেন দেশের ভোটার হওয়ার। এবার তাদের দীর্ঘদিনের লালিত স্বপ্ন পূরণ করতে চলেছে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন মহাজোট সরকার।
যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও মধ্যপ্রাচ্যসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে প্রায় ৫০ লাখ বাঙ্গালীর অবস্থান। এর মধ্যে সিলেট বিভাগের রয়েছেন প্রায় ২০ লাখ। ১৯৭৩ সাল থেকে ১৯৯১ সাল পর্যন্ত প্রবাসীরা এ দেশের ভোটার ছিলেন। ১৯৯৬ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারির বিতর্কিত নির্বাচনের পূর্বে ভোটার তালিকা হতে তাদের নাম বাদ দেওয়া হয়। প্রবাসীরা হারান তাদের ভোটাধিকার।