এটিএমএ হাসান জেবুল দায়িত্ব নিতে প্রস্তুত – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

এটিএমএ হাসান জেবুল দায়িত্ব নিতে প্রস্তুত

প্রকাশিত: ১১:৫৭ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৯, ২০১৯

এটিএমএ হাসান জেবুল দায়িত্ব নিতে প্রস্তুত

উজ্জ্বল চৌধুরী
রাজনীতি সচেতন আওয়ামী পরিবারে বেড়ে ওঠা জেবুলের বড় ভাই বীর মুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট এম এ সালাম ছিলেন তৎকালীন সিলেট মহকুমা ছাত্রলীগের সভাপতি ও পরবর্তীতে সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক। বড় বোন সামছুন্নাহার মিনা সিলেট ল’ কলেজ ছাত্র সংসদের ছাত্রী মিলনায়তন সম্পাদিকা ও জেলা আওয়ামী লীগের সদস্যের দায়িত্ব পালন করেছেন। আরেক বোন হুসনে আরা খানম ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের সহ প্রচার সম্পাদক। পারিবারিকভাবেই রাজনীতিতে হাতেখড়ি হওয়া এটিএমএ হাসান জেবুল কৈশোরেই ১৯৮৩ সালে নির্বাচিত হন স্কুল ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের আহবায়ক। প্রতিবাদী ও দৃঢ়চেতা জেবুল ১৯৮৮-৮৯ সালে সিলেটের ঐতিহ্যবাহী মদন মোহন কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতির দায়িত্ব পান। স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের সম্মুখ সারির এই নেতা একাধিকবার ছাত্রশিবির ও ছাত্রদল কর্তৃক হামলার শিকার হন। তবুও তিনি থেমে থাকেননি।
১৯৮৯-৯১ সাল পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করেন সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সদস্য হিসেবে। পরবর্তীতে আন্দোলন সংগ্রামে তার সরব উপস্থিতি, তেজোদ্বীপ্ত বক্তব্য আর অসাধারণ সাংগঠিনক দক্ষতাকে বিবেচনায় নিয়ে তৎকালীন স্থানীয় ও জাতীয় নেতৃত্ব ২০০৩ সালে অনুষ্ঠিত সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলনে তাকে নির্বাচিত করেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক। গণতন্ত্র পুন:প্রতিষ্ঠা আন্দোলনের অন্যতম শীর্ষ এই নেতা খালেদা-নিজামীর ১৫ ফেব্রুয়ারির প্রহসনের নির্বাচন প্রতিহত করতে পুলিশ ফাঁড়ি থাকা অবস্থায় মাত্র ১১ জন সহযোদ্ধা নিয়ে অপূর্ব কৌশলে নির্বাচন কমিশনে হামলার নেতৃত্ব দেন। এছাড়া ১/১১ কালীন সময়ে জননেত্রী শেখ হাসিনা গ্রেপ্তার হলে মদন মোহন কলেজ ও শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের নেতা কর্মীদের সাথে যোগাযোগ করে প্রতিবাদ মিছিল সংগঠিত করার নেপথ্য ভূমিকা পালন করেন। তার দলীয় আনুগত্য আর রাজনৈতিক বিচক্ষণতায় মুগ্ধ হয়েই তৎকালীন স্থানীয় ও জাতীয় নেতৃত্ব ২০১১ সালের গঠিত সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের কমিটিতে তাকে নির্বাচিত করেন সাংগঠিনক সম্পাদক হিসেবে। রাজনীতি সচেতন স্পষ্টবাদী এটিএমএ হাসান জেবুল আসন্ন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলনে রয়েছেন আলোচনার কেন্দ্র বিন্দুতে। তৃণমূলের অনেকেরই দাবী সাংগঠনিক দক্ষতা নেতৃত্বগুণ আর পারিবারিক ঐত্যহ্যের কারণে এটিএমএ হাসান জেবুলই হতে পারেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদের অন্যতম দাবিদার।
আসন্ন সম্মেলনে সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থীতা প্রসঙ্গে আলাপচারিতায় এটিএমএ হাসান জেবুল জানান- ‘বঙ্গবন্ধু কন্যা দেশরতœ জননেত্রী শেখ হাসিনা, কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দসহ সিলেটের সর্বস্তরের বঙ্গবন্ধুর অনুসারীরা আমার রাজনৈতিক ভূমিকা বিবেচনায় নিয়ে যে দায়িত্ব অর্পন করবেন সে দায়িত্বই যথাযথভাবে পালনের জন্য আমার সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা অতীতের ন্যায় অব্যাহত থাকবে। সকলের সহযোগিতায় সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগকে একটি সু-সংগঠিত সংগঠন হিসেবে গড়ে তুলতে আমার চেষ্টার কোন ত্রুটি থাকবে না। ইনশাল্লাহ।’

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল