এমপি-ইউএনও সঙ্গে ফের অতিথির আসনে ট্রিপল মার্ডার পলাতক আসামিরা – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

এমপি-ইউএনও সঙ্গে ফের অতিথির আসনে ট্রিপল মার্ডার পলাতক আসামিরা

প্রকাশিত: ৬:৫৯ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১, ২০১৭

এমপি-ইউএনও সঙ্গে ফের অতিথির আসনে  ট্রিপল মার্ডার পলাতক আসামিরা

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জে ট্রিপল মার্ডারের পলাতক আসামি উপজেলা চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান ও পৌর মেয়র মোশারফ মিয়া স্থানীয় সংসদ সদস্য ডা. জয়াসেন গুপ্ত ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মঈন উদ্দিন ইকবাল এর সঙ্গে পৃথক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে ফের আলোচনার জন্ম দিয়েছেন। হাফিজুর রহমান ও মোশারফ মিয়া জেলার দিরাইয়ের জারলিয়া জলমহাল দখল নিয়ে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে তিন জেলে হত্যা মামলার আসামি।
বুধবার (০১ নভেম্বর) জাতীয় যুব দিবস এক অনুষ্ঠানে স্থানীয় এমপি জয়া সেনগুপ্তা ও ইউএনও এর উপস্থিতিতে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন ট্রিপল মার্ডারের পলাতক আসামি হাফিজুর। ডা. জয়াসেন এর উপস্থিতিতে সুরঞ্জিত সেন গুপ্ত স্মৃতি পরিষদের আহবায়ক কমিটির এক অনুষ্ঠানে মঙ্গলবার অতিথি হিসেবে যোগদান করেন পৌর মেয়র মোশারফ মিয়া। বিকালে দিরাই অডিটিরিয়ামের হল রুমে অনুষ্টান যুব দিবসের অনুষ্ঠান আর আহবায়ক কমিটির অনুষ্ঠান হয় স্থানীয় সংসদ সদস্যের বাস ভবনে।
প্রসঙ্গত, ১৭ জানুয়ারি জলমহাল দখল নিয়ে সংঘটিত বন্দুকযুদ্ধে তিন জেলে নিহত হলে ৩৯ জনকে আসামি করে দিরাই থানায় হত্যা মামলা করেন যুবলীগ নেতা একরার হোসেন। আলোচিত এই হত্যা মামলায় উপজেলা চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমানকে অন্যতম আসামি করা হয়। এ ছাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক প্রদীপ রায় এবং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মোশাররফ মিয়াও ট্রিপল মার্ডার মামলার আসামি। মামলার পর হাফিজুরসহ আট আসামি উচ্চ আদালত থেকে ছয় সপ্তাহের অন্তর্বরতী জামিন নিলেও নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণ করেননি। ৩ মে হাফিজুরসহ অন্য আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আবদুল্লাহ মোহাম্মদ সালেহ।
এদিকে প্রভাবশালী এই তিন আসামির বিরুদ্ধে আদালতের গ্রেফতারি পরোয়ানা থাকার পরও ক্ষমতার প্রভাব খাটিয়ে প্রকাশ্যে তারা ঘুরে বেড়াচ্ছেন। সরকারের দায়িত্বশীল কর্তাব্যক্তিদের উপস্থিতিতে অতিথি হয়ে যোগ দিচ্ছেন বিভিন্ন সভা-সমাবেশে।