জাতীয় দল থেকে বাদ পড়ার শঙ্কায় শোয়েব মালিক – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

জাতীয় দল থেকে বাদ পড়ার শঙ্কায় শোয়েব মালিক

প্রকাশিত: ৮:২২ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৭, ২০২০

জাতীয় দল থেকে বাদ পড়ার শঙ্কায় শোয়েব মালিক

স্পোর্টস ডেস্ক

পাকিস্তানে চলমান জাতীয় টি-টোয়েন্টি কাপে প্রত্যাশিত পারফরম্যান্স করতে পারছেন না অভিজ্ঞ ক্রিকেটার শোয়েব মালিক। টুর্নামেন্টের দশ ম্যাচে ১৭.৭ গড়ে মাত্র ১৭৭ রান করেছেন জাতীয় দলের সাবেক এই অধিনায়ক।

এমন পারফরম্যান্সের কারণে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আসন্ন তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজে বাদ পড়তে পারেন শোয়েব মালিক।

চলমান জাতীয় টুর্নামেন্টে প্রত্যাশার চেয়েও ভালো খেলছেন খুশদিল শাহ। তিনি ৩৫ বলে দ্রুততম সেঞ্চুরির রেকর্ড গড়েছেন। সাউদার্ন পাঞ্জাবের হয়ে দশ ম্যাচে এক সেঞ্চুরি আর দুই ফিফটির সাহায্যে ৩৬.৩৩ গড়ে ৩২৭ রান সংগ্রহ করেছেন তিনি।

গত বছরের নভেম্বরে অস্ট্রেলিয়া সফরে পার্থে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিকে অভিষেক হয় খুশদিল শাহর। প্রথম ম্যাচে মাত্র ৮ রানে আউট হন তিনি। এরপর পাকিস্তান ৮টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেললেও সেখানে জায়গা হয়নি তার।

তবে ন্যাশনাল টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স করে জিম্বাবুয়ে সিরিজে ফেরার জোর সম্ভাবনা তৈরি করেছেন খুশদিল শাহ। জিম্বাবুয়ে সিরিজে খুশদিল শাহ ফিরলে অফ-ফর্মের কারণে জাতীয় দল থেকে বাদ পড়তে পারেন শোয়েব মালিক।

শুধু খুশদিল শাহই নন, জাতীয় টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে দশ ম্যাচে এক সেঞ্চুরি আর দুই ফিফটির সাহায্যে ৪৪.৭৫ গড়ে ৩৫৮ রান করা পাঞ্জাবের আব্দুল্লাহ শফিকও জাতীয় দলে অভিষেকের সম্ভাবনা তৈরি করেছেন।

ক্রিকেট পাকিস্তান সূত্রে জানা যায়, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজে পাকিস্তান ক্রিকেট দলের তারকা ওপেনার ফখর জামান, পেসার ওয়াহাব রিয়াজ এবং সাবেক অধিনায়ক উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান সরফরাজ আহমেদকে বিশ্রাম দেয়া হতে পারে।

জাতীয় টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে ৭ ম্যাচে দুই ফিফটিতে ৩৮ গড়ে ২৮৮ রান করা মোহাম্মদ হাফিজও জিম্বাবুয়ে সিরিজ বাদ পড়তে পারেন। সাবেক এই অধিনায়ক সম্প্রতি পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডেকে (পিসিবি) না জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন। যে কারণে মোহাম্মদ হাফিজের ওপর অসন্তুষ্ট পিসিবির শীর্ষ কর্তারা।

৩০ অক্টোবর রাওয়ালপিন্ডিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডে খেলবে পাকিস্তান। সিরিজের বাকি দুই ওয়ানডে একই ভেন্যুতে ১ ও ৩ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের খেলাগুলো ৭, ৮ ও ১০ নভেম্বর লাহোরে অনুষ্ঠিত হবে।