জিয়াউর রহমানের অবদান মুছে ফেলার চেষ্টা দুঃখজনক : জো মোর – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

জিয়াউর রহমানের অবদান মুছে ফেলার চেষ্টা দুঃখজনক : জো মোর

প্রকাশিত: ১১:১৮ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ৪, ২০১৬

জিয়াউর রহমানের অবদান মুছে ফেলার চেষ্টা দুঃখজনক : জো মোর

4444শিকাগো, ৪ অক্টোবর মঙ্গলবার: শিকাগো সিটি কাউন্সিলের ডেপুটি ওল্ডারম্যান মেয়র জো মোর বলেছেন, বাংলাদেশে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা শহীদ রাষ্ট্রপতি ও স্বাধীনতার ঘোষক জিয়াউর রহমানকে যথাযথ মূল্যায়ন করছে না বর্তমান সরকার। জিয়াউর রহমানের অবদান মুছে ফেলার চেষ্টা দুঃখজনক। দেশটির সর্ববৃহৎ ও জনপ্রিয় একটি গণতান্ত্রিক দলকে তাদের গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহতের সুযোগ দেয়া হচ্ছে না। এটা সত্যিই দুঃখজনক। একটি স্বাধীন দেশের জন্য বিষয়টি মঙ্গলজনক নয়।

সোমবার শিকাগোর অনারারারি জিয়াউর রহমান ওয়ের দ্বিতীয় বার্ষিকী উদযাপন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি। শিকাগো বিএনপির সভাপতি শাহ মোজাম্মেল নান্টুর সভাপতিত্বে এতে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন, শিকাগো সিটি কাউন্সিলের ডেপুটি মেয়র ও ইলিনিয়স রাজ্যের ডেমোক্রেটি পার্টির চেয়ারম্যান জো মোর এবং সাবেক প্রধানমন্ত্রীর সহকারি প্রেস সচিব মুশফিকুল ফজল আনসারী।

শিকাগো সিটির ক্লার্ক স্ট্রীট পয়েন্টে জিয়াউর রহমান ওয়ের আনুষ্ঠানিক স্বীকৃতি দেয়া হয় দুই বছর আগে। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের মামলার পরও আদালতের রায় বহাল থাকায় সিটি কাউন্সিল কর্তৃক স্বাধীনতার ঘোষক ও বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের নামেই নামকরণ করা হয় এই রাস্তাটি।

অনুষ্ঠানে জো মোর আরো বলেন, জিয়াউর রহমান  বাংলাদেশ নয়, আন্তর্জাতিক মানের নেতা হিসেবেই শিকাগো সিটি কাউন্সিলের পক্ষ থেকে তাকে সম্মানিত করা হয়েছে। এসময়ে বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক অবস্থা ভঙ্গুর বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

জিয়াউর রহমানের নাম মুছে ফেলা সম্ভব নয় এমন দাবি করে সাংবাদিক মুশফিকুল ফজল আনসারী বলেন, মহান স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান স্বাধীন ও গণতান্ত্রিক বাংলাদেশের রুপকার। তাকে চাইলে জনগণের মন থেকে মুছে ফেলা যাবে না। তিনি বলেন, শহিদ জিয়া কেবল বাংলাদেশের নেতা ছিলেন না তিনি ছিলেন বিশ্ব নেতা। আজও সারা বিশ্বে তিনি সমাদৃত।

তিনি বলেন, সরকার একদলীয় শাসন ব্যবস্থায় গণতন্ত্রের পথ রুদ্ধ করে বসেছে। জাতি এ অবস্থা থেকে উত্তরণ চায়। এ জন্য প্রয়োজন একটি অবাধ ও সুষ্ঠু জাতীয় নির্বাচন।

শিকাগো বিএনপির সভাপতি শাহ মোজাম্মেল নান্টু বলেন, এই ওয়ে যাতে জিয়াউর রহমানের নামে না হয় তা নিয়েও আওয়ামী লীগ ষড়যন্ত্র করেছিলো। কিন্তু তাদের সে স্বপ্ন সফল হয়নি। শহীদ জিয়া দেশে ও বিদেশে সমান জনপ্রিয়।

অনুষ্ঠানে বিএনপি নেতারা বলেন, আওয়ামী লীগ জিয়াউর রহমান ও তার পরিবারকে রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলায় ব্যর্থ হয়েই আজকে জিয়া পরিবারকে ধ্বংসের ষড়যন্ত্র-চক্রান্তে লিপ্ত। দেশের মাটিতে জিয়াউর রহমানের নাম মুছে ফেলার ষড়যন্ত্র কখনোই বাস্তবায়ন হবে না বলে হুঁশিয়ারী উচ্চারণ করেন তারা।

এদিকে শিকাগো নগরিতে ‘জিয়াউর রহমান ওয়ের’ দ্বিতীয় বর্ষপূর্তি পালন করেছে স্থানীয় বিএনপি ও এর সহযোগি সংগঠনগুলো। জিয়াউর রহমান ওয়ের দুই বর্ষপূর্তি উপলক্ষে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করে শিকাগো সিটি ও ইলিনয়স স্টেট বিএনপি। ক্লার্ক স্ট্রিটের জিয়াউর রহমান ওয়ের ওপরের উম্মুক্ত স্থানে কেক কেটে দ্বিতীয় বার্ষিকী উদযাপন করেন বিএনপি নেতারা।

শিকাগো বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নার্গিস আক্তার ডেইজি ও সাংগঠনিক সম্পাদক দুলু মিয়ার যৌথ সঞ্চালনায় এতে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, মিশিগান বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সেলিম আহমদ, শিকাগোর বিএনপির প্রধান উপদেষ্টা শাহ মোসাদ্দেক মিন্টু’সহ বিভিন্ন স্থান থেকে ছুটে আসা যুক্তরাষ্ট্র বিএনপি নেতারা।

জিয়াউর রহমান ওয়ের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠান শেষে বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নামে উদ্দেশ্যমূলক গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির প্রতিবাদে কর্মসূচিও পালন করা হয়। এতে বক্তব্য রাখেন ফিরোজ, অভি ওয়াহিদ, নিজাম, সদোরুদ্দিন নূরানি, মালেক’সহ শিকাগো ও ইলিনিয়স বিএনপি’র নেতারা।

এ সময়ে বক্তারা বলেন, বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হয়ে অবৈধ সরকার প্রধান শেখ হাসিনা ষড়যন্ত্রের জাল বিস্তার করছে। কোন ষড়যন্ত্র ও চক্রান্তই তারেক রহমানের অগ্রযাত্রাকে ব্যাহত করতে পারবেনা। তিনি বিশ্বের মানুষের মণিকোঠায় জায়গা করে নিয়েছেন এবং আগামী দিনের দেশের নেতৃত্ব তার হাতে।