ডিবি পুলিশের ধাওয়া খেয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু, উপ-পরিদর্শক প্রত্যাহার – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

ডিবি পুলিশের ধাওয়া খেয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু, উপ-পরিদর্শক প্রত্যাহার

প্রকাশিত: ১:০৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১২, ২০১৬

ডিবি পুলিশের ধাওয়া খেয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু, উপ-পরিদর্শক প্রত্যাহার

dbমৌলভীবাজার প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে ডিবি পুলিশের ধাওয়ায় এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শককে প্রত্যাহার করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার ভোর রাতে কমলগঞ্জ উপজেলার রহিমপুর ইউনিয়নের কালেঙ্গা গ্রামে। ইয়াবা ব্যবসায়ী শিপন মিয়া (২৫)কে ধরতে তার বাড়িতে পুলিশ অভিযান চালায়। পুলিশের অভিযানকালে ইয়াবা ব্যবসায়ী শিপন পালিয়ে গেলেও ভয়ে দৌড়ে পালাতে গিয়ে ইয়াবা ব্যবসায়ীর বাবা ছাতির মিয়া (৫৫) টিলা রাস্তায় পড়ে গিয়ে মারা যান।

পুলিশ ও স্থানীয় একাধিক নির্ভরযোগ্য সূত্র জানায় নিহত ছাতির মিয়ার ছেলে শিপন সাজাপ্রাপ্ত আসামী ও এলাকার একজন চিহ্নিত ইয়াবা ব্যবসায়ী। তাছাড়া সম্প্রতি মৌলভীবাজারের মাইজদিহি এলাকায় সংঘটিত ডাকাতি ঘটনার সাথেও যুক্ত ছিল বলে জানা যায়। শিপনকে ধরতে মৌলভীবাজারের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোল্লা মো. শাহীনের নেতৃত্বে ডিবি পুলিশের একটি দল বৃহস্পতিবার ভোর রাতে অভিযান চালায়। এ অভিযানে শিপনের প্রতিপক্ষ মাদক ব্যবসায়ী মঞ্জু ও জুবেদসহ আরও তিনজন অংশ নেয়। অভিযান টের পেয়ে শিপন মিয়া আগেই বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে গেলেও ডিবি পুলিশের ভয়ে শিপনের বাবা ছাতির মিয়া (৫৫) দৌড়ে পালাতে গিয়ে পাহাড়ি টিলা থেকে পড়ে মারা যান। ঘটনার পর বৃহস্পতিবার সকালে কমলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বদরুল হাসানের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল কালেঙ্গা গ্রামে গিয়ে নিহত ছাতির মিয়ার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করে। এলাকায় চাপা উত্তেজনা থাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে নিহত ছাতির মিয়ার স্ত্রীর সখিনা বেগম (৪৮) অভিযোগ করে বলেন, ছেলে শিপন অপরাধের সাথে যুক্ত। তাই বলে পুলিশ তার বাবা ছাতির মিয়াকে হাতকড়া লাগিয়ে ধরে নিতে চাইলে তারা আপত্তি জানিয়েছিলেন। এতে পুলিশ ক্ষিপ্ত হয়ে বেদড়কভাবে পিটুনি দিলে তিনি (সখিনা), ছেলের বউসহ বাড়ির আরও লোকজন আহত হয়েছেন। ডিবি পুলিশ স্বামী ছাতির মিয়াকে নিয়ে যাওয়ার সময় তিনি ভয়ে হাতকড়াসহ দৌড়ে পালাবার সময় পাহাড়ি টিলা থেকে পড়ে মারা যান।

পুলিশের ধাওয়ায় পালিয়ে যাবার সময় বৃদ্ধ ছাতির মিয়ার মৃত্যুর খবর শুনার পর স্থানীয়ভাবে কিছুটা উত্তেজনার সৃষ্টি হলে কালেঙ্গা গ্রামে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেওয়া হয়। এ ঘটনায় মৌলভীবাজরের পুলিশ সুপার মো. শাহাজালাল ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শক নজরুল ইসলামকে প্রত্যাহার করে পুলিশ লাইনে নেয়া হয়েছে।

মৌলভীবাজারের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোল্লা মোহাম্মদ শাহীন বৃদ্ধ ছাতির মিয়া মারা যাবার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আসলে তাকে হাতকড়া পরানো হয়নি। তিনি পুলিশি ভয়ে নিজ থেকেই দৌড়াতে গিয়ে পাহাড়ি টিলা থেকে পড়ে মারা গেছেন। তার ছেলে শিপন একজন সাজাপ্রাপ্ত আসামী। তাছাড়া ইয়াবা ব্যবসার সাথে যুক্ত। তার উপর গ্রেফতারী পরওয়ানাও ছিল। তার ছোট ভাই রিপন মিয়াও মাদক ব্যবসার সাথে যুক্ত। ঘটনার জন্য ডিবির উপ পরিদর্শক নজরুর ইসলামকে প্রত্যাহারের সত্যতা নিশ্চিত করেন। ঈুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল বলেন, দৌড়ে পালাতে গিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে, তবে এব্যাপারে পুলিশ দায়ী থাকলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি বলেন ডিবি’র উপ-পুলিশ পরিদর্শক নজরুল ইসলামকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল