ত্রান সামগ্রী নিয়ে কানাইঘাটের বন্যার্তদের পাশে জেলা প্রশাসক

প্রকাশিত: ১০:৪৩ অপরাহ্ণ, মে ১৭, ২০২২

ত্রান সামগ্রী নিয়ে কানাইঘাটের বন্যার্তদের পাশে জেলা প্রশাসক

ত্রান সামগ্রী নিয়ে কানাইঘাটের বন্যার্তদের পাশে জেলা প্রশাসক

কানাইঘাট প্রতিনিধি

সিলেটের জেলা প্রশাসক মো. মজিবর রহমান কানাইঘাটের সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি দেখার পাশাপাশি বন্যা দুর্গতদের মাঝে ত্রান সামগ্রী বিতরন করেছেন। মঙ্গলবার বিকেল ৪টার দিকে তিনি কানাইঘাটে আসেন।

এ সময় তিনি স্বচক্ষে বন্যা পরিস্থিতি দেখেন এবং পৌরসভার রামিজা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও ডালাচর গ্রামের বন্যা দুর্গতদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন এবং নদীপথে কানাইঘাটের ভয়াবহ বন্যা প্রত্যক্ষ করেন।

এ সময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন সিলেটের স্থানীয় সরকারের উপপরিচালক মো. মামুনুর রশিদ, কানাইঘাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল মোমিন চৌধুরী, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুমন্ত ব্যানার্জি, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র লুৎফুর রহমান, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মুনমুন নাহার আশা, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা এমদাদুল হক, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জহিরুল ইসলাম, কানাইঘাট থানার ওসি (তদন্ত) দিলীপ কান্ত নাথ, সদর ইউপির চেয়ারম্যান প্রভাষক আফসর উদ্দিন আহমদ চৌধুরী, লক্ষীপ্রসাদ পূর্ব ইউপির চেয়ারম্যান তমিজ উদ্দিন, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা তরিকুল ইসলাম সহ উপজেলার বিভিন্ন দপ্তরের সরকারি কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিবৃন্দ।

ত্রাণ সামগ্রী বিতরণকালে জেলা প্রশাসক মজিবর রহমান সিলেটের সার্বিক বন্যা পরিস্থিতির বিষয়ে স্থানীয় সাংবাদিকদের বলেন, অনেক উপজেলায় প্রাকৃতিক দুর্যোগ বন্যা পরিস্থিতি বিরাজ করছে। এর মধ্যে কানাইঘাট উপজেলার বন্যা পরিস্থিতি দেখার জন্য আজ আমি এখানে এসেছি। কানাইঘাটে বন্যা পরিস্থিতি অন্যান্য উপজেলার চেয়ে অনেক খারাপ। এখানকার বেশীরভাগ মানুষ পানিবন্ধী অবস্থায়। এই মূহুর্তে সরকারের পাশাপাশি সিলেটের প্রশাসন বন্যা দুর্গতদের পাশে রয়েছে। ইতিমধ্যে কানাইঘাটে বন্যা দুর্গতদের জন্য ৩৯ মেট্টিক টন চাল ও ৫ শত প্যাকেট শুকনো খাবার বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।

পর্যায় ক্রমে ত্রাণ সামগ্রী আরো বেশী করে বরাদ্দ দেওয়া হবে। কারণ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সার্বক্ষনিক সিলেটের বন্যাপরিস্থিতি খোঁজ খবর আমাদের কাছ থেকে নিচ্ছেন। সরকার বন্যা দূর্গতদের পাশে রয়েছে এবং প্রয়োজনে সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

পৌর মেয়র লুৎফুর রহমানসহ জনপ্রতিনিধি ও গণমাধ্যম কর্মীরা কানাইঘাটে ভয়াবহ বন্যা পরিস্থিতির কথা জেলা প্রশাসকের কাছে তুলে ধরে বলেন ২০০৪ সালের পর কানাইঘাটে এবারের বন্যায় গোটা উপজেলা আক্রান্ত হয়ে পড়েছে। হাজার হাজার মানুষ পানি বন্দী হয়ে দূর্বিসহ জীবন-যাপন করছেন। এই মুহুর্তে আরো বেশী করে ত্রাণ সামগ্রী প্রয়োজন। পাশাপাশি ভাঙ্গনকৃত সুরমার ডাইকগুলো মেরামতের পাশাপাশি বেরিবাঁধ নির্মাণও নদী ভাঙ্গন প্রতিরোধে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহনের দাবী জানান।

জেলা প্রশাসক এ ব্যাপারে পদক্ষেপ নেওয়া হবে আশ^স্ত প্রদান করেন। বৈরি আবহাওয়া উপেক্ষা করে কানাইঘাটের বন্যাদুর্গত মানুষের খোঁজ খবর নেওয়ায় জেলা প্রশাসক মজিবর রহমানকে উপজেলা পরিষদ, প্রশাসনের কর্মকর্তা সহ জনপ্রতিনিধিরা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুমন্ত ব্যানার্জি কানাইঘাটে বন্যা দেখা দেওয়ার পর থেকে সার্বক্ষনিকভাবে প্রতিটি এলাকায় ছুটে গিয়ে বন্যার্তদের পাশে দাড়ানোর পাশাপাশি খোঁজ খবর অব্যাহত রাখায় এ সময় তার কর্মকান্ডের প্রশংসা করেন সবাই।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল