প্রকৃত ঘটনা আড়াল করতে ইমাদ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মিথ্যা অপপ্রচার – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

প্রকৃত ঘটনা আড়াল করতে ইমাদ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মিথ্যা অপপ্রচার

প্রকাশিত: ১:২৮ পূর্বাহ্ণ, জুন ৬, ২০২০

প্রকৃত ঘটনা আড়াল করতে ইমাদ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মিথ্যা অপপ্রচার

ইমাদ উদ্দিন আহমদ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মিথ্যা তথ্য দিয়ে বানোয়াট মনগড়া সংবাদ প্রকাশ করছে একটি ষড়যন্ত্রকারী মহল। যা সম্পন্ন মিথ্যা ও বানোয়াট। প্রকৃত ঘটনা হচ্ছে গত ২২শে মে শুক্রবার এয়ারপোর্ট থানায় গাড়ি চুরির মামলা দায়ের করেন বাদী ইমাদ উদ্দিন আহমদ চৌধুরী। এয়ারপোর্ট থানার মামলা নং ১৯(০৫)২০২০।
বাদী মামলা করার পর থেকেই আসামীগন বিভিন্ন ভাবে বাদীকে মামলা তুলে নেওয়ার জন্য হুমকি দিচ্ছে। অবশেষে গত ঈদ উল ফিতরের পূর্বের রাত্র আনুমানিক ১১টার দিকে মামলার এজেহার ভুক্ত আসামী ছিনতাইকারী ও মাধক ব্যাবসায়ী৷ মিলন-আকরামের নেতৃত্বে তাদের অপরাধ জগতের ৩০-৩৫জন সঙ্গী নিয়ে পূনরায় বাদী ইমাদ উদ্দিনের বাসায় হামলা করে। হামলার খবর পেয়ে এলাকাবাসী তাদের কে দাওয়া করলে তারা পালিয়ে যায়। যাহা বাদীর বাসার সামনের সিসি ক্যামেরায় ধারনকৃত আছে। হামলার বিষয়টি বাদী সাথে সাথে ফোন করে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তাকে জানান। এত কিছুর পরও আসামীগন প্রকাশ্যে ঘোরাঘুরি করতেছে সরকার দলীয় প্রভাব খাটিয়ে। এই নিয়ে বাদী তার পরিবার ও জান মালের নিরাপত্তা নিয়ে খুবই চিন্তিত। বাদীর বাসায় ও বাদীর পরিবারের লোকজন সহ বাদীর উপর কখন কী ঘটবে তা নিয়ে বাদী দুশ্চিন্তায় রয়েছে। প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে বাদী এইসব চিহ্নত অপরাধীদের দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা কামনা করছে বাদী পক্ষ।
উল্লেখ্য: সিলেট নগরীতে চুরি করা প্রাইভেট কারসহ দুই ছাত্রলীগ নেতাকে আটক করেছে এয়ারপোর্ট থানা পুলিশ। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে তাদেরকে আখালিয়া এলাকা থেকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হচ্ছে সিলেট মহানগরীর ৭নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আবুল কালাম আজাদ তুহিন ও তার সহযোগী রুহেন। এসময় তাদের চুরি করা ৯০ মডেলের একটি প্রাইভেট কার উদ্ধার করে পুলিশ। আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে এয়ারপোর্ট থানার ওসি শাহদাত হোসেন বলেন, সেহরির কিছুক্ষণ আগে নগরীর বনকলাপাড়া ৫২ নম্বর বাসা থেকে ৯০ মডেলের একটি প্রাইভেট কার চুরি করে আবুল কালাম আজাদ তুহিন ও রুহেন। খবর পেয়ে মাত্র ২০ মিনিটের মধ্যেই তাদেরকে আখালিয়া এলাকা থেকে আটক করতে সক্ষম হয় এয়ারপোর্ট থানা পুলিশ। তিনি বলেন, তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। কিছুক্ষণ পরে তাদের কোর্টে চালান করা হবে। আবুল কালাম আজাদ তুহিনের বিরুদ্ধে সিলেটর বিভিন্ন থানায় পূর্বের ১৫টির মত মামলা রয়েছে,যার মধ্যে ছিনতাই,মাদক,চুরি,ডাকাতি সহ অন্যান্য মামলা রয়েছে।
এই মামলাকে আড়াল করতে ইমাদ উদ্দিন আহমদ চৌধুরীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন অপপ্রচার চালানো হচ্ছে বলে তিনি দাবী করেন।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল