ফজলুর রহমান পটল আর নেই ! শোক – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

ফজলুর রহমান পটল আর নেই ! শোক

প্রকাশিত: ১:৪১ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১২, ২০১৬

ফজলুর রহমান পটল আর নেই ! শোক

potolফজলুর রহমান পটলের ইন্তেকাল নিজস্ব প্রতিবেদক ১২ আগস্ট ২০১৬,শুক্রবার, ০০:৫৫ প্রিন্ট সাবেক যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী এবং বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ফজলুর রহমান পটল ভারতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেছেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। তিনি বেশ কিছু দিন ধরেই কিডনি জটিলতাসহ নানা রোগে ভুগছিলেন। কিছু দিন আগে তিনি চিকিৎসার জন্য কলকাতার রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হাসপাতালে ভর্তি হন। গত রাত ৯টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। তার বয়স হয়েছিল ৬৬ বছর। তিনি স্ত্রী, দুই ছেলে ও দুই মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। ফজলুর রহমান পটলের সংসদীয় এলাকা নাটোরের লালপুরে। তিনি রাকসুর ভিপি ছিলেন। পরিবারের একজন সদস্য জানিয়েছেন, হাসপাতালের দাফতরিক প্রক্রিয়া শেষে আজ শুক্রবার অথবা আগামীকাল শনিবার তার লাশ ঢাকায় আনা হবে। ফজলুর রহমান পটলের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। এক শোকবার্তায় তিনি বলেন, ফজলুর রহমান পটলের মৃত্যুতে বিএনপি একজন জাতীয়তাবাদী নেতাকে হারাল। এ ক্ষতি অপূরণীয়। তিনি মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং তার পরিবারের সদস্যদের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা প্রকাশ করেন। দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরও গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। আরো শোক প্রকাশ করেছেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য তরিকুল ইসলাম। তিনি এক শোকবার্তায় পটলের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেন এবং তার পরিবারের সদস্যদের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা জানান।

bagum kalada ziaবিএনপি নেতা পটলের মৃত্যুতে খালেদার শোক

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ফজলুর রহমান পটলের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। শুক্রবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে খালেদা জিয়া এ শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। স্বাধীনতা যুদ্ধের বীর সেনানী ও সাবেক প্রতিমন্ত্রী ফজলুর রহমান পটল গতরাতে ভারতের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন।  শোকবার্তায় খালেদা জিয়া বলেন, “মরহুম ফজলুর রহমান পটল ছিলেন জাতীয় রাজনীতির একজন বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব। তিনি তার বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবনে একজন সুদক্ষ সংগঠক ও প্রাজ্ঞ রাজনীতিবিদ হিসেবে দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনে নিজেকে সুপ্রতিষ্ঠিত করেছিলেন।”

“শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের বাংলাদেশি জাতীয়তাবাদী দর্শনে উদ্বুদ্ধ হয়ে বিএনপিতে যোগদান করার পর থেকে আমৃত্যু দলকে সুসংগঠিত ও শক্তিশালী করতে তিনি নিরলসভাবে কাজ করে গেছেন। তার জীবদ্দশায় দেশ ও দলের প্রতি তার ভালবাসা ছিল অকৃত্রিম। বিএনপির বিরুদ্ধে সকল ষড়যন্ত্রকে দৃঢ়চিত্তে মোকাবেলা করতে তিনি যে ভূমিকা পালন করেছেন তা দলের সকল নেতাকর্মীর জন্য অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।”

তিনি বলেন, “দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষা ও বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রতি তার (ফজলুর রহমান) অঙ্গীকার ছিল অতুলনীয়। মানুষের নাগরিক ও মত প্রকাশের স্বাধীনতায় তিনি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করতেন। এজন্য স্বাধীনতা সংগ্রাম থেকে শুরু করে দেশের সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে তার ভূমিকা ছিল অনবদ্য। স্বাধীনতা যুদ্ধে দেশমাতৃকার মুক্তির জন্য তিনি যে অবদান রেখেছেন তা চিরকাল স্মরণীয় হয়ে থাকবে।”

“দেশের মানুষের প্রতি অত্যন্ত সহমর্মী মরহুম ফজলুর রহমান পটল এর মৃত্যুতে দেশ একজন সত্যিকারের দেশপ্রেমিক রাজনীতিককে হারালো, যার অভাব সহজে পূরণ হবার নয়।

বিবৃতিতে বিএনপি প্রধান মরহুম ফজলুর রহমান পটল এর বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকাহত পরিবারবর্গ, আত্মীয়স্বজন, গুনগ্রাহী ও শুভানুধ্যায়ীদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।