বিমানবন্দরে আরটিপিসিআর ল্যাব ৩-৪ দিনের মধ্যে – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

বিমানবন্দরে আরটিপিসিআর ল্যাব ৩-৪ দিনের মধ্যে

প্রকাশিত: ৯:৩৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১

বিমানবন্দরে আরটিপিসিআর ল্যাব ৩-৪ দিনের মধ্যে

তিন-চার দিনের মধ্যে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর ল্যাব বসিয়ে করোনা পরীক্ষা সম্ভব হবে। সিভিল এভিয়েশনের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মফিদুর রহমান এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, আগামী তিন-চার দিনের মধ্যে ল্যাব স্থাপনসহ আরটি-পিসিআর কার্যক্রম শুরু হবে। ল্যাব স্থাপনের জন্য নির্বাচিত একটি ডায়াগনস্টিক সেন্টার নির্ধারিত স্থানে মোবাইল ল্যাব স্থাপন করে শিগগিরই করোনা পরীক্ষা শুরু করবে।

শনিবার বিকালে প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী ইমরান আহমদ হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কার পার্কিং ইয়ার্ডে বিদেশগামী কর্মীদের করোনা পরীক্ষার জন্য আরটি-পিসিআর ল্যাব স্থাপনের সাইট পরিদর্শনকালে এই তথ্য জানান মফিদুর রহমান।

এ সময় মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন, জনশক্তি কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরোর মহাপরিচালক শহীদুল আলম উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে ৭টি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানকে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে করোনা পরীক্ষার আরটি-পিসিআর ল্যাব বসাতে অনুমোদন দিয়েছে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়। বিমানবন্দরের উত্তর পাশের বহুতল কারপার্কিং ভবনের ছাদে ল্যাব স্থাপনের জন্য জায়গা নির্ধারণ করা হয়েছে।

জানা গেছে, এই সাতটি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে স্টেমজ হেলথ কেয়ার তিন দিনের মধ্যে ল্যাব স্থাপন করতে পারবে বলে জানিয়েছে। তারা নমুনা পরীক্ষার মূল্য নির্ধারণ করেছে দুই হাজার টাকা। সিএসবিএফ হেলথ সেন্টারের ল্যাব স্থাপনে সময় লাগবে পাঁচ দিন, নমুনা পরীক্ষার খরচ নেবে এক হাজার ৮৫০ টাকা। এএমজেড হাসপাতাল পাঁচ দিনে ল্যাব স্থাপন করতে পারবে, নমুনা পরীক্ষায় খরচ নেবে এক হাজার ৮০০ টাকা। আনোয়ার খান মডার্ন মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল চার দিনে ল্যাব স্থাপন করতে পারবে বলে জানিয়েছে। তারা নমুনা পরীক্ষার খরচ দেখিয়েছে ২ হাজার টাকা। জয়নুল হক সিকদার ওমেন্স মেডিকেল কলেজ ল্যাব স্থাপনে ছয় দিন সময় চেয়েছে এবং খরচ চেয়েছে ১ হাজার ৭০০ টাকা। পাঁচ দিনে ল্যাব স্থাপন করতে পারবে বলে জানিয়েছে গুলশান ক্লিনিক, যাদের নমুনা পরীক্ষার খরচ এক হাজার ৭৫০ টাকা আর ডিএমএফআর ল্যাব স্থাপন করতে সময় চেয়েছে চার দিন, যেখানে নমুনা পরীক্ষার খরচ দুই হাজার ৩০০ টাকা।

বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর ল্যাব না থাকার কারণে অনেক দেশ বাংলাদেশ থেকে তাদের দেশে ঢুকতে দিচ্ছে না। এই ল্যাবের মাধ্যমে অল্প সময়ের মধ্যে করোনার পরীক্ষার ফল পাওয়া সম্ভব। সম্প্রতি অনেক দেশ বিমানবন্দর থেকে করোনা পরীক্ষা করার পর উড়োজাহাজে উঠার শর্ত আরোপ করেছে। বাংলাদেশের কোনো বিমানবন্দরে এমন সুবিধা নেই। এতে অনেক প্রবাসী দেশে আটকা পড়েছেন। এর ফলে একদিকে প্রবাসীরা বিদেশে তাদের চাকরি নিয়ে উদ্বেগে আছেন, অন্যদিকে দেশ বঞ্চিত হচ্ছে রেমিটেন্স আয়ের সম্ভাবনা থেকে। এসব বিষয়কে গুরুত্ব দিয়ে মন্ত্রিসভা বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী সংশ্লিষ্টদেরকে দ্রুত আরটি-পিসিআর ল্যাব স্থাপনের নির্দেশ দিয়েছেন।

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল