ব্যবসায়ী আব্দুস সালামকে হুমকির প্রতিবাদে বিশ্বনাথে মানববন্ধন – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

ব্যবসায়ী আব্দুস সালামকে হুমকির প্রতিবাদে বিশ্বনাথে মানববন্ধন

প্রকাশিত: ৮:২০ অপরাহ্ণ, মার্চ ৫, ২০২১

ব্যবসায়ী আব্দুস সালামকে হুমকির প্রতিবাদে বিশ্বনাথে মানববন্ধন

 

সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার ১নং লামাকাজি ইউনিয়নের মির্জারগাও গ্রামের আব্দুস সালামকে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়েছে। শুক্রবার (৫ মার্চ) বাদ জুমআ লামাকাজী ইউনিয়নের অন্তর্গত স্থানীয় মাহতাব পুর মৎস্য আড়ৎ এর পাশে সিলেট-সুনামগঞ্জ রোডের উভয় পার্শ্বে মির্জারগাঁও, মাহতাবপুর মৎস্য আড়ৎ এর ব্যবসায়ী ও কর্মচারী এবং সিলেট জেলা অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিষ্ট্রেশন নং চট্ট-৭০৭ শাখার মির্জারগাও মাহতাব পুর মৎস্য ড়ৎ উপকমিটির সাধারণ শ্রমিকবৃন্দের উদ্যোগে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, শাহপরান মৎস আড়ৎ এর স্বত্তাধিকারী সিলেট জেলা অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিষ্ট্রেশন নং চট্ট ৭০৭ এর অন্তর্ভুক্ত মির্জার গাঁও, মাহতাব পুর মৎস্য আড়ৎ উপকমিটি এর উপদেষ্টা কমিটির সদস্য মোঃ আব্দুস সালাম যারা হত্যার হুমকি দিয়েছে তাদেরকে অচিরেই গ্রেপ্তার করতে হবে।

বক্তারা বলেন, মির্জারগাঁও গ্রামের আব্দুল্লাহ, খালেদ মিয়া, আব্দুস শহীদসহ যারাই হুমকি দিয়েছে তাদেরকে চিহ্নিত করতে হবে। তাদেরকে আইনের আওতায় না আনলে শ্রমিকরা কঠোর আন্দোলনের ডাক দেবার হুশিয়ারী উচ্চারণ করেন।

এ মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন সিলেট জেলা অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিষ্ট্রেশন নং চট্ট ৭০৭ মির্জার গাও মাহতাব পুর মৎস্য আড়ৎ উপকমিটির উপদেষ্ঠা মো. বশির উদ্দিন, বর্তমান সভাপতি মো. সমুজ মিয়া, সহ সভাপতি মো. রাহিম উদ্দিন, ১নং লামাকাজি ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের বর্তমান মেম্বার মো. আবুল কালাম, সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ আলী, লামাকাজি স্টেন্ডের সাবেক ম্যানেজার আনোয়ার হোসেন আনর, সদস্য জসিম উদ্দিন প্রমুখ। লামাকাজি ইউনিয়ন এর ২নং ওয়ার্ড এর বর্তমান মেম্বার মো. আবুল কালাম তার বক্তব্যে আব্দুল্লাহ, খালেদ ও আব্দুস শহীদ গংরা শ্রমিক নেতা নামধারী চাঁদাবাজ। বর্তমান উন্নয়ন বান্ধব সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের আওতায় আনা আমার ওয়ার্ড এর কাজগুলো করতে চাইলে আমি প্রায়ই তাদের দ্বারা বাধাগ্রস্ত হই নতুবা তাদেরকে চাঁদা দিতে হয়। সর্ব শেষ গত ৩ মার্চ সন্ধ্যা ৭টার দিকে লামাকাজি মাছ বাজারের আছির উদ্দিন হোটেলে আব্দুস সালামকে তারা ডেকে নিয়ে জবরদস্তি করে শ্রমিক সংগঠনের পদত্যাগ পত্রে স্বাক্ষর নেওয়ার চেষ্টা করে কিন্তু আব্দুস সালাম পদত্যাগ পত্রের ফরমেট টি নিয়ে দস্তখত করছি বলে কৌশলে সেখান থেকে চলে আসেন। পরে এ ঘটনায় তিনি আব্দুস সালাম বাদী হয়ে বিশ্বনাথ থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন, ডায়েরি নং ১৬০, (৩মার্চ ২০২১)। ওই দিন উক্ত শ্রমিক সংগঠনের উপকমিটির বর্তমান সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ আলী বাদী হয়েও বিশ্বনাথ থানায় আরেকটি সাধারণ ডায়েরি করেন, ডায়েরি নং ১৫৯। এখন আমাদের একটাই দাবি সঠিকভাবে তদন্তের মাধ্যমে অচিরেই এসব শ্রমিক নেতা নামধারী চাঁদাবাজদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির মাধ্যমে অচিরেই আইনের আওতায় আনা উচিত নতুবা সাধারণ নিরীহ সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিক ড্রাইভারগণ ভবিষ্যতে আরো কঠোর আন্দোলনের ডাক দিবেন। হত্যা হুমকি ও এ ব্যপারে সাধারণ ডায়েরি প্রসঙ্গে বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শামীম মুসা পিপিএম জানান যে, আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী তদন্ত চলছে, সঠিক তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত হুমকিদাতাদের অবশ্যই আইনের আওতায় আনা হবে।