মে দিবসের অনুষ্ঠানে পুলিশের বাধা – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

মে দিবসের অনুষ্ঠানে পুলিশের বাধা

প্রকাশিত: ৩:০৬ অপরাহ্ণ, মে ১, ২০১৬

মে দিবসের অনুষ্ঠানে পুলিশের বাধা

may dayপুলিশের পক্ষ থেকে অব্যাহত চাপে সংক্ষিপ্ত করতে হয়েছে নগরনাট- এর মে দিবসের অনুষ্ঠান।

‘মুক্তির দাবীতে মিলুক প্রাণ’ শিরোনামে সিলেটে নগরনাট আয়োজন করেছিল মে দিবস স্মরণে অনুষ্ঠানের।

রবিবার (১ মে) সিলেটের সুরমা নদীর পাড়ে আলী আমজাদের ঘড়িঘর সংলগ্ন অস্থায়ী মঞ্চ নির্মাণ করে অনুষ্ঠান আয়োজন করেছিল নগরনাট। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পুলিশের নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে বাধার মুখে সংক্ষিপ্ত আয়োজনে শেষ করতে হয়েছে।

নগরনাট কর্মীরা জানান, মে দিবসের অনুষ্ঠান আয়োজনে নগরনাটের পক্ষ থেকে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের কাছে লিখিতভাবে আবেদন করেন সংগঠনের সভাপতি অরূপ বাউল। আবেদনে বিকেল ৩:৩০ থেকে সন্ধ্যা ৭:০০ টা পর্যন্ত অনুমতি চাওয়া হয়। এসময় তারা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন শেষ পর্যন্ত পুলিশের নিরাপত্তার অজুহাতে মে দিবসের অনুষ্ঠান সংক্ষিপ্ত করতে হয়েছে বলে।

অরূপ জানান, আজ রবিবার অনুষ্ঠান সংক্ষিপ্ত করে শেষ করার জন্য বারবার পুলিশের পক্ষ থেকে চাপ দেওয়ায় শেষ পর্যন্ত আয়োজন সংক্ষিপ্ত করতে হয়েছে। অনেক আমন্ত্রিত শিল্পী ও সংগঠন তাদের উপস্থিতি সত্ত্বেও মঞ্চে আমন্ত্রণ জানাতে পারিনি পুলিশী বাধার কারণে।

রবিবার বিকেল সাড়ে ৪ টায় উদীচী লাক্কাতুরা চা বাগান শাখার পরিবেশনা দিয়ে শুরু হয় মে দিবসের আয়োজন। এরপর ছন্দ নৃত্যালয় নৃত্য পরিবেশন করে। অচুৎ চক্রবর্তী বর্ষণের নির্দেশনায় সদ্য প্রয়াত কৃতি নৃত্যশিল্পী সুবর্ণা সাহাকে উৎসর্গ করে পরিবেশন করে ব্রতচারী নৃত্য ও গণসংগীত।

এরপর তারুণ্য সিলেট, মৃত্তিকায় মহাকাল সিলেট, থিয়েটার মুরারিচাঁদ, থিয়েটার লিডিং মঞ্চে তাদের পরিবেশনা পরিবেশন করে। আবৃত্তি, নৃত্য, নাটক ও গণসংগীত দিয়ে সাজানো পুরো অনুষ্ঠানে বিপুল সংখ্যক শ্রমজীবী মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য শনিবার দুপুরে নগরনাটের পক্ষ থেকে  মঞ্চ নির্মাণ করতে গেলে পুলিশ বাধা দেয়। তখন কোতোয়ালি থানায় গেলে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জানান পহেলা বৈশাখের ৫ টা পর্যন্ত নির্দেশনা এখনো বহাল রয়েছে। তখন তাদেরকে অনুষ্ঠান করার সর্বোচ্চ সময়সীমা মাগরিবের নামাজের পূর্ব পর্যন্ত বেধে দেওয়া সিদ্ধান্ত চাপিয়ে দেওয়া হয় বলে অরূপ জানান।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্ত বলেন, সংস্কৃতিকে কখনও বদ্ধ ঘরে আবদ্ধ করে রাখা যায় না। বাঙালির সংস্কৃতি নিজস্ব গতিতে সকল বাধা অতিক্রম করে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছাবে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল