লাখাইয়ে মাস্ক ব্যবহার করছে না বেশীর ভাগ মানুষ : মাঠে নেই প্রশাসন

প্রকাশিত: ২:০১ পূর্বাহ্ণ, জুন ১০, ২০২০

লাখাইয়ে মাস্ক ব্যবহার করছে না বেশীর ভাগ মানুষ : মাঠে নেই প্রশাসন
আশীষ দাশ গুপ্ত, লাখাই
হবিগঞ্জ জেলার লাখাই উপজেলায়  মাস্ক ব্যবহার করছে না বেশির ভাগ মানুষ। নভেল করোনা ভাইরাসের সংক্রমণরোধে মাস্ক ব্যবহারের ওপর সরকারের কঠোর নির্দেশনা থাকলেও এ উপজেলায় তা মানা হচ্ছে না। অপরদিকে লাখাই  সদর সহ অন্যান্য ইউনিয়নের হাট বাজারে বিভিন্ন  অফিস ব্যাংকে মাস্ক ব্যবহার না করা হচ্ছে না  মঙ্গলবার লাখাই  সোনালী ব্যাংকে গেলে দেখা যায় মাস্ক না পড়ে অনেক লোক ব্যাংকের ভিতরে ব্যাংকের এক কর্মচারী বলে কত বলবো ভাই বেশি বেশি বললে মানুষ   বিরক্তি হয়। ব্যাংক ম্যানেজার  কামাল উদ্দীন বলেন কত বলবো আমি থাকি আমার চেয়ারে কখন মানুষ ডুকছে, বললে চলে যায় আবার আসে।  এখন পর্যন্ত মাঠে নামেনি প্রশাসন। এতে করে প্রশাসনের  অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন সচেতন মানুষ।
তাদের মতে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে বলা হয়েছে। বাইরে বের হলে মাস্ক ব্যবহার করতে হবে। মাস্ক ব্যবহার না করলে ভ্রাম্যমাণ আদালতে এক লাখ টাকা জরিমানা ও ছয় মাসের জেল প্রদানের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু প্রশাসন বিষয়টি গুরুত্ব না দেওয়ায় করোনার ঝুঁকি দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। ভ্রাম্যমাণ আদালতে দু-চারজনকে জেল-জরিমানা করা হলে অন্ততপক্ষে ভয়ে মানুষ মাস্ক ব্যবহার করতেন।
মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার লাখাই বাজারে  হাটে গিয়ে দেখা গেছে, সামাজিক দূরত্বতো মানছেই না মাস্কও ব্যবহার করছে না বেশির ভাগ মানুষ। কেউ কেউ মৃখে না পড়ে গলায় ঝুলিয়ে রেখেছে। জিজ্ঞাসা করলে বিভিন্ন ধরনের অজুহাত দেখানো হচ্ছে।
লাখাই উপজেলার ১নং ইউনিয়নের বিচারক নাম ধারি সরদার  বিনা মূল্য চা পান খাওয়ার জন্য সকাল বাজারে চা দোকানে আড্ডা দিচ্ছে। মানছেনা স্বাস্থ্য বিধি কেহ যদি মাস্ক পড়ে তাদেরকে টিটকারি মসকরি  করছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল