সরকার খাদিজার পাশে আছে, পাশে থাকবে –সাবেক মেয়র কামরান – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

সরকার খাদিজার পাশে আছে, পাশে থাকবে –সাবেক মেয়র কামরান

প্রকাশিত: ১:২৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৪, ২০১৬

সরকার খাদিজার পাশে আছে, পাশে থাকবে –সাবেক মেয়র কামরান

kamran-copy২৪ অক্টোবর ২০১৬ সোমবার: সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক সিটি মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টায় ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে খাদিজা আক্তার নার্গিসকে দেখতে যান ও তার চিকিৎসকদের সাথে কথা বলে চিকিৎসার খোঁজ খবর নেন। সাবেক মেয়র কামরান জানান, তিনি যখন খাদিজাকে দেখতে যান তখন খাদিজা তাঁর দিকে তাকিয়েছিলেন। কিন্তু কোন অনুভূতি প্রকাশ করেন নি। চিকিৎসকরা বলেছেন তাকে নিবীড় পরিচর্যায় রাখা হয়েছে। ধীরে ধীরে তার শারিরীক অবস্থার আরো উন্নতি হবে। পাশাপাশি তিনি খাদিজার বাবা মাসুক মিয়ার সাথে সাথে কথা বলেন। তিনি বলেন, সরকার খাদিজার পরিবারের সাথে আছে, থাকবে এবং তাদেরকে নিরাপত্তা ও সব রকমের সহযোগিতা দেওয়া হবে। তিনি বলেন বদরুল যেই দলেরই হোক না কেন ুুুদ্রুত বিচার আইনের মাধ্যমে তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করা হবে। এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে কামরান বলেন এটা একটা কাপুরুষোচিত, বর্বরোচিত ও ন্যাক্কারজনক ঘটনা। এ ঘটনার নিন্দা জানানোর ভাষা নেই। এসময় তার সাথে ছিলেন সিলেট জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা গোলাম কিবরিয়া মাসুক।
উল্লেখ্য, ৩ অক্টোবর সোমবার বিকেলে সিলেটের এমসি কলেজে পরীক্ষা দিয়ে বের হওয়ার পর খাদিজা আক্তার নার্গিসকে চাপাতি দিয়ে নিষ্ঠুরভাবে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে শাহাজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ও শাবি ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক বদরুল আলম। এ সময় সাধারণ শিক্ষার্থীরা হামলাকারীকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় খাদিজা আক্তার নার্গিসকে প্রথমে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। একাধিক অস্ত্রোপচার শেষে তার অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় চিকিৎসকদের পরামর্শে রাতেই ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। বর্তমানে সে হাসপাতালে নিবিড় পর্যবেক্ষণে রয়েছে। সে সময় খাদিজাকে দেখতে সর্বপ্রথম ওসমানী হাসপাতালে যান সাবেক এই নগর পিতা। তাছাড়া সিলেটের বদরুলের শাস্তির দাবীতে আয়োজিত বিভিন্ন কর্মসূচীতেও তিনি একাত্মতা পোষণ করেছিলেন। সর্বোপরী খাদিজার পরিবারের সদস্যদের ও স্বজনদের সাথে নিবীড়ভাবে যোগাযোগ রক্ষা করে তাদের শান্তনাও দিয়েছিলেন তিনি।