সিলেটেও সাইবার ক্রাইমের জাল, মূলহোতা নাসির গ্রেফতার

প্রকাশিত: ৫:২০ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০২০

সিলেটেও সাইবার ক্রাইমের জাল, মূলহোতা নাসির গ্রেফতার

সিলেটের দিনকাল ডেস্ক:
বাংলাদেশ চলচ্চিত্রের বেশ কয়েকজন সেলিব্রেটির ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়ে যায়। হ্যাকার গ্রুপ চিত্রনায়ক, খলনায়কদের কাছে মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করে। টাকা না দিলে তাদের ক্যারিয়ার পর্যন্ত ধ্বংস করার হুমকি দিতে থাকে হ্যাকাররা। ভুক্তভোগী এসব সেলিব্রেটি অজানা আশঙ্কায় ভুগতে থাকেন। কী করবেন, কোথায় যাবেন, কাকে বলবেন- এ নিয়ে তাদের চিন্তার যেন শেষ নেই। যদি টাকায় এ সমস্যা মিটে যায়, তাতে তারা রাজি আছেন। কিন্তু আবারও যে হ্যাকারদের শিকার তারা হবেন না, তার নিশ্চয়তা কোথায়? এমন ভাবনায় তারা পরিচিত লোকজনের পরামর্শ চান। অধিকাংশই টাকার বিনিময়ে দফারফা করার পরামর্শ দেন। সে পথেই এগোন ভুক্তভোগী সেলিব্রেটিরা। হ্যাঁ, তারা মোটা অঙ্কের টাকা পাঠিয়ে দেন। ফেসবুক অ্যাকাউন্টও ফিরে পান।

ভালোই চলছিল সবকিছু। কিন্তু হঠাৎ সেই আগের সমস্যা! চলচ্চিত্রের নায়ক, খলনায়করা আবারও হ্যাকারের শিকার। তাদের কাছে টাকা দাবি করছে হ্যাকার গ্রুপ। বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি র‌্যাব-২ এর কাছে অভিযোগ করে। অভিযোগে বলা হয়, শিল্পী সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর, সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খানসহ তাদের বেশকিছু সেলিব্রেটির ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়েছে। র‌্যাব এ নিয়ে কাজ শুরু করে। আগের হ্যাক হওয়া আইডির মালিক অভিনেতা-অভিনেত্রীদের সঙ্গেও কথা বলেন র‌্যাব কর্মকর্তারা। তদন্তের একপর্যায়ে র‌্যাব একটি চক্রের সন্ধান পায়। ২০ জনের এ হ্যাকার চক্রটি অত্যন্ত পারদর্শী। এদের মূল হোতা নাসির। যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী এক সাইবার অপরাধী। কিছুদিন আগে একে সাইবার অপরাধের কারণে যুক্তরাষ্ট্র পুলিশ গ্রেফতার করেছিল। এ নাসিরই ফেসবুকসহ সোশ্যাল মিডিয়ায় বিজ্ঞপ্তি দিয়ে হ্যাকার গ্রুপে যোগদানের জন্য লোক নিয়োগ করেন।

অনলাইনে ভিডিও টিউটোরিয়ালের মাধ্যমে কীভাবে ফেসবুক আইডি হ্যাক করতে হবে, নিজ দখলে নিতে হবে, কীভাবে ফেক জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করা যায়, আইডির বিনিময়ে টাকা কীভাবে গ্রহণ করতে হয়- সবকিছুই করেন এই নাসির। দেশের ভিতরে তার সঙ্গে রয়েছেন মীর মাসুদ রানা, সৌরভ, বাবলু রহমান, আতিক, জেইনা রাইহান, আফরাজ মিম আশা, সারাকা মজুমদার, সিনথিয়া, তানভি, সুমাইয়া, রুবিসহ একটি শক্তিশালী সাইবার অপরাধী চক্র। র‌্যাবের দল তৎপর হওয়ায় হ্যাকাররা বুঝতে পারেন। তারা বিদেশ পালানোর চেষ্টা করছিলেন। অনেকেই আত্মগোপনে থেকে নিজেদের মধ্যে যোগাযোগ রক্ষা করে আসছিলেন।

গত শুক্রবার হ্যাকার গ্রুপের অন্যতম দুই সদস্য সিলেট থেকে বাসযোগে ঢাকার মহাখালী এসে নামেন। খবর পেয়ে যায় র‌্যাব। মহাখালী বাসস্ট্যান্ড থেকে মীর মাসুদ রানা ও সৌরভ নামে দুজনকে গ্রেফতার করে। র‌্যাব এদের কাছ থেকে যে তথ্য পায়, তাতে তারা হতবাক। তারা স্বীকার করেছেন, তাদের এ টিমের নাম ‘টিম সিলেট’। চলচ্চিত্র অভিনেতা মিশা সওদাগর, জায়েদ খান, রিয়াজ, শাহনূর, আঁচল, রেসি, কেয়া, মাহি, বিপাশাসহ আরও বেশ কজন নামিদামি শিল্পীর ফেসবুক আইডি তারা হ্যাক করেছেন। সেই সঙ্গে তারা প্রতিনিয়ত সাধারণ ফেসবুক ব্যবহারকারীদের আইডি হ্যাক করে আসছিলেন। হ্যাক করা আইডি ফেরত দিতে তারা ৫০ হাজার থেকে ১ লাখ টাকা পর্যন্ত হাতিয়ে নেন। চক্রের প্রতিটি সদস্য এভাবে মাসে এক থেকে দেড় লাখ টাকা আয় করতেন।

র‌্যাব কর্মকর্তারা বলছেন, তথ্যপ্রবাহের অবাধ সুযোগ লাভ আজ যেমন সময়ের দাবি, সেই সঙ্গে তথ্যপ্রযুক্তির অবৈধ ব্যবহার নিয়ন্ত্রণ ও এর লাগাম টেনে ধরা অতীব জরুরি। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে হলে প্রযুক্তির ব্যবহারে উৎকর্ষতা যেমন বাড়াতে হবে, তেমন করে প্রযুক্তির নিরাপদ ব্যবহারে কড়াকড়ি আরোপ ছাড়া এ শিল্পের বিকাশ অসম্ভব।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল