সিলেট নগরী থেকে ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

সিলেট নগরী থেকে ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার

প্রকাশিত: ৭:৫৭ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৪, ২০১৬

সিলেট নগরী থেকে ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার

maftyuiop৫ আক্টোবর ২০১৬, বুধবার: সিলেট নগরীর সোবহানিঘাটের মেহেরপুর হোটেল থেকে এক ব্যবসায়ীর গলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল মঙ্গলবার রাত ১০ টার দিকে সিলেট কোতোয়ালি থানাপুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ওসমানী হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। নিহত ব্যবসায়ীর নাম শাকিল আহমদ (৩৪)। তিনি দক্ষিণ সুরমার মোগলাবাজারের শ্রীরামপুরের মৃত লাল মিয়ার ছেলে বলে হোটেল রেজিস্ট্রিতে নাম লিখিয়েছেন।
ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা গেল, মেহেরপুর হোটেলে কোতোয়ালি থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার নুরুল হুদা আশরাফি ও ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুহেল আহাম্মদের নেতৃত্বে বিপুল সংখ্যক পুলিশ।
গত সোমবার দুপুর ১২ টার দিকে হোটেলের ৩য় তলার ১১৩ নম্বর কক্ষ ভাড়ায় নিয়ে ওঠেন ওই ব্যবসায়ী। এর পর তিনি দরজা বন্ধ করে দেন। গতকাল পর্যন্ত তার সাড়াশব্দ না পেয়ে এবং কক্ষের সামনে মাছি উড়তে দেখে ও পচা গন্ধ নাকে পেয়ে হোটেল কৃর্তপক্ষ পুলিশে খবর দেন। পুলিশ ভেতরে সিটকিনি লাগানো দরজা ভাঙলে দেখা যায় লাশ পড়ে আছে মেঝেতে। গলায় রশি প্যাঁচানো। ওই কক্ষে অন্য কোনো দরজা বা জানালা নেই। পুলিশের ধারণা, শাকিল সিলিং ফ্যানের সঙ্গে রশিতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। গরমের দিন থাকায় লাশটি পচে গন্ধ বেরোচ্ছে।
হোটেলের পরিচালক হাজি তেরাব আলী জানান, এ হোটেলের পরিচালক চারজন। তিনি খবর পেয়ে এসেছেন। গত সোমবার যখন নিহত শাকিল রুমে ওঠেন, তখন ম্যানেজার ছিলেন হাফিজ লোকমান আহমদ।
সিলেট কোতোয়ালি থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার (এসি) নুরুল হুদা আশরাফি বলেন, প্রাথমিক সুরতহাল দেখে মনে হচ্ছে, তিনি আত্মহত্যা করেছেন। কারণ, কক্ষটি ভেতর থেকে বন্ধ ছিল এবং অন্য কোনো দরজা-জানালা নেই। ধারণা করছি, লাশটি ফুলে ভারী হয়ে যাওয়ায় সিলিংফ্যান ছিঁড়ে মাটিতে পড়ে গেছে।