সিলেট প্রধান ডাকঘর: দেয়ালসংলগ্ন ফুটপাত হকারদের দখলে – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

সিলেট প্রধান ডাকঘর: দেয়ালসংলগ্ন ফুটপাত হকারদের দখলে

প্রকাশিত: ১:১৫ অপরাহ্ণ, মে ১৯, ২০১৬

সিলেট প্রধান ডাকঘর: দেয়ালসংলগ্ন ফুটপাত হকারদের দখলে

sylhet logo gasaসিলেটের প্রধান ডাকঘরটি নগরের বন্দরবাজার এলাকায় অবস্থিত। ডাকঘরের প্রধান দুটি ফটক, পিলার লেটার বক্সের সম্মুখভাগ, দেয়ালসংলগ্ন ফুটপাত এবং রাস্তা বন্ধ করে হকাররা স্থায়ীভাবে সবজির ব্যবসা চালিয়ে আসছেন। কয়েক বছর ধরে এ অবস্থা চললেও সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা তা উচ্ছেদে কার্যকর কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছেন না।
গত সোমবার বেলা আড়াইটায় সরেজমিনে দেখা গেছে, অন্তত ৩০ জন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী প্রধান ডাকঘর দেয়ালসংলগ্ন ফুটপাতে সবজির পসরা সাজিয়ে বসেছেন। ডাকঘরের প্রধান ফটকঘেঁষে হকাররা বসায় ডাকঘরের ভেতরে গাড়ি ঢুকতে পারছিল না। এমনকি ফটকের পাশে স্থাপিত পিলার লেটার বক্সেও গ্রাহকেরা নির্বিঘ্নে চিঠি ফেলতে পারছিলেন না।
চিঠি ফেলতে আসা নগরের বিলপাড় এলাকার বাসিন্দা ইসমাইল মিয়া বলেন, ‘পিলার লেটার বক্স ঢেকে হকাররা বসায় চিঠি ফেলতে পারছিলাম না। শেষে ডাকঘরের ভেতরে গিয়ে বক্সে চিঠি ফেললাম। এ ছাড়া ডাকঘরের সামনের ফুটপাত পুরোটাই হকাররা দখল করে ফেলায় সেখান দিয়ে হাঁটাচলা করাও সম্ভব হয় না।’
ডাকঘরের দুজন কর্মকর্তা বলেন, দেয়ালসংলগ্ন সামনের ফুটপাত বেদখল করে ফেলায় ডাকঘরটিই রীতিমতো আড়ালে চলে গেছে। সবজি বিক্রেতারা প্রায়ই বিক্রয় অযোগ্য পচা-গলা সবজি, পলিথিন, ভাঙা খাঁচা ডাকঘরের ভেতরে ফেলে সেখানকার পরিবেশ নষ্ট করছেন। ডাকঘর বন্ধ হওয়ার পর রাতের আঁধারে দেয়াল টপকে ভেতরে ঢুকে অনেকে মলমূত্রও ত্যাগ করে। আবার দলবেঁধে মাদকের আড্ডাও বসে এখানে।
ডাকঘরের সামনের ফুটপাত থেকে হকারদের উচ্ছেদ করার জন্য সহযোগিতা চেয়ে সিলেট সিটি করপোরেশন, জেলা প্রশাসন ও মহানগর পুলিশ কমিশনারের কাছে অন্তত ২০ বার লিখিত আবেদন করেছেন বলে জানিয়েছেন প্রধান ডাকঘরের সহকারী পোস্টমাস্টার জেনারেল কাম পোস্টমাস্টার নূরুল হক। তিনি বলেন, ‘হকারদের দৌরাত্ম্যের কাছে রীতিমতো অসহায় হয়ে পড়েছি। স্থানীয় প্রশাসনের কাছে অসংখ্যবার লিখিত আবেদন করেছি। কিন্তু ডাকঘরের সামনের অংশ হকারমুক্ত হচ্ছে কই?’