“হত্যাকারী যে দলেরই হোক, তার পরিচয় সে হত্যাকারী। – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

“হত্যাকারী যে দলেরই হোক, তার পরিচয় সে হত্যাকারী।

প্রকাশিত: ২:৩১ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২১, ২০১৭

“হত্যাকারী যে দলেরই হোক, তার পরিচয় সে হত্যাকারী।

সুমন মিয়া (মৌলভিবাজার):  “হত্যাকারী যে দলেরই হোক, তার পরিচয় সে হত্যাকারী। এর বাইরে তার কোন পরিচয় হতে পারেনা। শান্তির শহরে কোন অপরাধীর স্থান হবেনা।”
মৌলভীবাজারে দুই শিক্ষার্থী সরকারী কলেজের মোহাম্মদ আলী শাবাব এবং সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের নাহিদ আহমদ মাহি হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে মৌলভীবাজার প্রেসক্লাব প্রাঙ্গনে সাংস্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব খালেদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে এবং আমার সঞ্চালনায় গত কাল সকাল ১১ টা থেকে প্রায় ২ ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে অংশ নিয়ে এমনই অভিমত রেখেছেন বক্তারা। আসামিদের দ্রুত গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় নিয়ে আসার জন্য অভিভাবক ও সচেতন মৌলভীবাজারবাসীর উদ্যোগে আয়োজিত মানবন্ধন ও প্রতিবাদে অংশ নিয়ে একাত্মতা ঘোষনা এবং বক্তব্য রাখেন পৌর মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ন সম্পাদক মো. ফজলুর রহমান, মৌলভীবাজার সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক মিজানুর রহমান, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মোহিত টুটু, মহিলা সংস্থার সভাপতি সৈয়দা জহুরা আলাউদ্দিন, উপজেলা বিএনপির সাবেক সাধারন সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন মাতুক, জেলা বিএনপির যুগ্ন সম্পাদক এডভোকেট আনোয়ার আক্তার চৌধুরী শিউলী, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুর রহমান বাবুল, জেলা যুবলীগ সভাপতি নাহিদ আহমদ, জেলা যুবলীগ সাধারন সম্পাদক সৈয়দ রেজাউর রহমান সুমন, শাবাবের শিক্ষক কবির উদ্দীন আহমদ শাহিন,  জেলা বিএনপির সহ সাংগঠনিক সম্পাদক ও আমতৈল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রানা খান শাহিন, এড. মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী টিটু, পৌর বিএনপির  সদস্য সচিব মনোয়ার আহমদ, সাংবাদিক পান্না দত্ত, সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান রাহেল, কুলাউড়া প্রসক্লাবের সাধারন সম্পাদক খালেদ পারভেজ, মোস্তফাপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান শেখ রুমেল আহমদ, জামিয়া দারুল কুরআন মাদরাসা মৌলভীবাজারের প্রিন্সিপাল মাওলানা শরীফ খালেদ সাইফুল্লাহ, যুবলীগ নেতা মহি উদ্দীন ফাহিম চৌধুরী, ক্রীড়া সংগঠক সালাম আহমদ জিতু, যুবলীগ নেতা জাহিদুল আলম সুমেল, যুবলীগ নেতা জসিম উদ্দীন, একাটুনা ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য যুবলীগ নেতা ইমন তরফদার, ক্রীড়া সংগঠক গাজী আবেদ, ক্রীড়া সংগঠক মন্জুরুন রুমেল, জেলা ছাত্রলীগ সাধারন সম্পাদক সাইফুর রহমান রনি ও সাংগঠনিক সম্পাদক সৌদ আল সুফিয়ান সাগর, গাজী জাবের, ছাত্রলীগ নেতা ফাহাদ চৌধুরী, ছাত্রলীগ নেতা ইয়াসিন, ছাত্রলীগ নেতা মাহরুফ তানভীর এবং নিহতদের সহপাঠিরা।
এছাড়াও নিহতদের পরিবারের পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন নিহত শাবাবের বাবা আবু বক্কর সিদ্দিক, মা সেলিনা রহমান চৌধুরী, , মামা শাম্মির হাবিব চৌধুরী রবিন, ভাই উসমান গনি শাকিল, ফুফাত ভাই মোবাশশির আলী মুন্না এবং মাহির মামা গোলাম ইমরান আলী।
মানববন্ধনে সভাপতির বক্তব্যে খালেদ চৌধুরী অবিলম্বে অপরাধীদের গ্রেফতার করা, হত্যাকান্ডের ঘটনার সুষ্ঠু বিচার ও পরবর্তী কর্মসূচীতে একসাথে অংশগ্রহণ করাসহ তিনটি দাবি উপস্থাপন করেন।