ডিজিটাল বাংলা গড়তে প্রকৃত মেধাবীদের মূল্যায়ন ব্যতীত বিকল্প পথ উন্মুক্ত নেই- ইউএনও আয়েশা হক – দৈনিক সিলেটের দিনকাল

ডিজিটাল বাংলা গড়তে প্রকৃত মেধাবীদের মূল্যায়ন ব্যতীত বিকল্প পথ উন্মুক্ত নেই- ইউএনও আয়েশা হক

প্রকাশিত: ৬:১৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২৩, ২০১৯

ডিজিটাল বাংলা গড়তে প্রকৃত মেধাবীদের মূল্যায়ন ব্যতীত বিকল্প পথ উন্মুক্ত নেই- ইউএনও আয়েশা হক

 

ফেঞ্চুগঞ্জস্থ বৃহত্তর কচুয়াবহর এলাকার প্রবাসীদের নিয়ে গঠিত বিশ্বব্যাপী পরিচিত আন্তর্জাতিক অনলাইন সংগঠন বৃহত্তর কচুয়াবহর প্রবাসী অনলাইন গ্রুপের ব্যবস্থাপনায় কচুয়াবহর মির্জাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কৃতি শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিশেষ মেধাবৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান-২০১৯ উপলক্ষে শ্রেষ্ঠ মেধাবীদের হাতে বিভিন্ন অনুপাতে নগদ অর্থ ও সনদ তুলে দেয়া হয়েছে। বুধবার (২৩ জানুয়ারি) কচুয়াবহর মির্জাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে এডভোকেট মনিরুল টিটু ও এফ এইচ ফারহানের যৌথ পরিচালনা এবং প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটির সভাপতি সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রবাসী গ্রুপের পক্ষে অডিও কনফারেন্সযোগে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ইউকে প্রবাসী দেওয়ান জহি। 

মির্জাপুর জামে মসজিদের ইমাম হাফেজ মোঃ শরীফ উদ্দিনের পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াতের মধ্য দিয়ে শুরু হওয়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা প্রশাসন ফেঞ্চুগঞ্জ’র দায়িত্বপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আয়েশা হক।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে আয়েশা হক বৃহত্তর কচুয়াবহর প্রবাসী অনলাইন গ্রুপ কর্তৃক গৃহীত এই মহৎ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ গঠনে প্রকৃত মেধাবীদের মূল্যায়ন ব্যতীত বিকল্প কোনো পথ উন্মুক্ত নেই বলে দাবি করেন। এছাড়াও তিনি বাস্তবায়িত উদ্যোগটির ভবিষ্যৎ প্রসার, শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন পদ্ধতি, পরিবহন ও অবকাঠামোগত ব্যবস্থার ওপর জোর তাগিদ সহ নানা তথ্যবহুল ও দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য তুলে ধরেন ; একই সাথে বিশ্বব্যাপী বাংলাদেশের সকল প্রবাসীদের শিক্ষা ও শিক্ষা সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয়ের মানগত উন্নয়নে বাস্তবমুখী উদ্যোগ গ্রহণের মাধ্যমে সম্মিলিতভাবে এগিয়ে আসার আহবান জানান।
ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলাধীন বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধি, শিক্ষকমন্ডলী, অভিভাবক, বৃহত্তর কচুয়াবহর এলাকার প্রবীণ মুরব্বী, তরুণ-যুবক সহ বিভিন্ন প্রিন্ট এবং ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে মেধাবৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ শফিক উদ্দিন, ফেঞ্চুগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি জিয়া খালেদ, প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক সৈয়দা রহিমা বেগম, প্রাক্তন প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটির সভাপতি শেখ মোজাহিদ আলী, শেখ এনামুল হক, প্রাক্তন শিক্ষক আমীর আলী, অমলেন্দু শেখর দে, আবুল আজাদ, মোস্তফা জুয়েল, জাকির চৌধুরী, প্রবাসী গ্রুপ প্রতিনিধি শেখ হাবিবুর রহমান, দেওয়ান সুইট, আজিজ মিয়া, মালেক মিয়া, হাফিজুর রহমান, শেখ মিনহাজুর রহমান, কুশিয়ারা এক্সপ্রেস পত্রিকার সম্পাদক  দেওয়ান ফাহিম, শেখ বদরুল হাসান শাওন, মাছুম আহমেদ, নাঈম চৌধুরী, শেখ ফাহিম প্রমুখ।
বক্তারা স্কুলটির অতীত ঐতিহ্যের সাথে মিশে থাকা প্রয়াত ব্যক্তিদের স্মৃতিচারণ সহ নানা ইতিবাচক বিষয়ের ওপর আলোকপাত করেন।
বিদ্যালয়ের সকল শ্রেণির শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিভিন্ন প্রতিযোগিতামূলক অংশগ্রহণের ভিত্তিতে উপহারসামগ্রী এবং ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলায় শিক্ষাক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার আয়েশা হক ও উপজেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ শফিক উদ্দিনকে বৃহত্তর কচুয়াবহর প্রবাসী অনলাইন গ্রুপের পক্ষ থেকে বিশেষ সম্মাননা প্রদান করার মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

ফেসবুকে সিলেটের দিনকাল